দেশের নারীদের মধ্যে উদ্যোক্তা হওয়ার বিপুল সম্ভাবনা রয়েছে : ইন্দিরা

ডেস্ক নিউজ: | ০৬:৩৭ মিঃ, মে ১১, ২০২২



মহিলা ও শিশু বিষয়ক প্রতিমন্ত্রী ফজিলাতুন নেসা ইন্দিরা বলেছেন, দেশের নারীদের মধ্যে উদ্যোক্তা হওয়ার বিপুল সম্ভাবনা রয়েছে। পণ্য প্রদর্শনী ও বিক্রয় কেন্দ্র নারী উদ্যোক্তাদের বিকাশে গুরত্বপূর্ণ ভূমিকা রাখবে। ১০ মে মঙ্গলবার ঢাকায় লালমাটিয়ায় মহিলা বিষয়ক অধিদপ্তর ভবনে আইজিএ প্রকল্পের আওতায় নারী উদ্যোক্তাদের তৈরি পণ্যের প্রদর্শনী ও বিক্রয় কেন্দ্র উদ্বোধন অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথির বক্তব্যে তিনি এসব কথা বলেন। মহিলা বিষয়ক অধিদপ্তরের মহাপরিচালক ফরিদা পারভীনের সভাপতিত্বে অনুষ্ঠানে বিশেষ অতিথি ছিলেন মহিলা ও শিশু বিষয়ক মন্ত্রণালয়ের সচিব ড. মুঃ আনোয়ার হোসেন হাওলাদার। এতে জয়িতা ফাউন্ডেশনের ব্যবস্থাপনা পরিচালক আফরোজা খান, আইজিএ প্রকল্প পরিচালক মো. তরিকুল ইসলাম প্রমুখ উপস্থিত ছিলেন। ফজিলাতুন নেসা ইন্দিরা আরো বলেন, দেশের নারীদের মধ্যে উদ্যোক্তা হওয়ার বিপুল সম্ভাবনা রয়েছে। মহিলা ও শিশু বিষয়ক মন্ত্রণালয় এই সম্ভাবনাকে বাস্তবে রূপ দিয়ে অর্থনৈতিক উন্নয়ন ও সামাজিক অগ্রগতির মাধ্যমে নারীর ক্ষমতায়ন নিশ্চিত করতে বিভিন্ন ট্রেডে প্রশিক্ষণ ও পণ্য বাজারজাতকরণে সহযোগিতা করে যাচ্ছে। তাদের উৎপাদিত পণ্যের ব্রান্ডিং, ডিজাইন, উৎপাদন ও ই-কমার্স বিষয়ে প্রশিক্ষণ প্রদান করা হচ্ছে। যা নারী উদ্যোক্তাদের সক্ষমতা বৃদ্ধি ও তাদের ব্যবসা পরিচালনায় দক্ষ করে গড়ে তুলছে।

প্রতিমন্ত্রী  বলেন, মহিলা ও শিশু বিষয়ক মন্ত্রণালয় তৃণমূল পর্যায়ে নারীর ক্ষমতায়ন এবং আইজিএ প্রকল্পের মাধ্যমে জেলা ও উপজেলায় নারী উদ্যোক্তাদের তৈরি পণ্যের বিক্রয় ও প্রদর্শনী কেন্দ্র এবং বিউটি পার্লার স্থাপন করছে। বিভাগ, জেলা ও উপজেলায় যেসকল ভবন করা হবে, সেসব ভবনে নারী উদ্যোক্তাদের তৈরি পণ্যের বিক্রয় ও প্রদর্শনী কেন্দ্র এবং বিউটি পার্লার স্থাপন করা হবে। এসব বিক্রয় ও প্রদর্শনী কেন্দ্র নারী উদ্যোক্তাদের দ্বারা পরিচালিত হবে। এখানে নারী উদ্যোক্তারা তাদের উৎপাদিত পণ্য সামগ্রী বিক্রয়ের সুযোগ পাবে। তারা নতুন নতুন পণ্য উৎপাদন ও ডিজাইন তৈরিতে উৎসাহিত হবেন। যা নারীর আত্মকর্মসংস্থান, ক্ষমতায়ন ও দেশের উন্নয়নে গুরুত্বপূর্ণ ভূমিকা রাখবে। মহিলা ও শিশু বিষয়ক মন্ত্রণালয় পাঁচ’শ একানব্বই কোটি টাকা ব্যয়ে ২০১৭ থেকে ২০২২ সাল মেয়াদে ইনকাম জেনারেশন একটিভিটিস (আইজিএ) প্রকল্প বাস্তায়ন করছে। এ প্রকল্পের মাধ্যমে দেশে ৩ লাখ ৮১ হাজার ২৫০ জন সুবিধাবঞ্চিত নারীর আয়বর্ধক প্রশিক্ষণ প্রদান করা হবে। এরই মধ্যে ২ লাখ ৬৭ হাজার জনের প্রশিক্ষণ সম্পন্ন হয়েছে। এই প্রকল্প থেকে ৬৪ জেলায় নারী উদ্যোক্তাদের উৎপাদিত পণ্য বিক্রয় ও প্রদর্শনী কেন্দ্র ও ২০টি বিউটি পার্লার স্থাপনের কাজ চলমান রয়েছে।

মন্তব্যঃ সংবাদটি পঠিত হয়েছেঃ 82 বার।




সর্বশেষ আপডেট

বিএসএমএমইউ-তে চিকিৎসার ব্যাপারে আরও সময় চান খালেদা এরা কী আন্দোলন করবেন, সবাই তো মঞ্চে ঘুমাচ্ছিলেন ডিজিটাল নিরাপত্তা আইন বাতিল চান ড. কামাল নিউইয়র্ক পৌঁছেছেন প্রধানমন্ত্রী চার হাজার মামলার কারণ জানতে চেয়ে রিট গায়েবি মামলায় ২২ দিনে আসামি ৩ লাখ ২৫ হাজার : রিজভী ১০ জেলায় নতুন ডিসি ধানের শীষ জনগণের কাছে বিষ : কাদের মংলা-বুড়িমারী বন্দরে শতভাগ দুর্নীতি : টিআইবি আসন বাড়লেও কমেছে এমবিবিএস ভর্তিচ্ছুর সংখ্যা! পাক-ভারত সেনাবাহিনীর মধ্যে ফের উত্তেজনা, পাল্টাপাল্টি হুমকি বিএনপি পার্টিটাই ভুয়া : কাদের ‘ব্যক্তিগতভাবে আমার চাওয়া-পাওয়ার কিছুই নেই’ ইরানে সামরিক কুচকাওয়াজে হামলা, নিহত বেড়ে ২৪
Designed & Developed by TechSolutions Bangladesh